• রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ০৪:৫৫ পূর্বাহ্ন |
  • English Version
শিরোনাম :
কটিয়াদীতে দুদল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে আহত শতাধিক, পুলিশের গুলি, গ্রেপ্তার ২৩ জমি অধিগ্রহণের দুই কোটি টাকা ফেরত না দিতে নানা ষড়যন্ত্র দাতার বিরুদ্ধে লাল বাহাদুরের রং পাল্টে হয়ে গেল কুচকুচে কালো নানা অঙ্গসজ্জায় সাজানো হয় কোরবানির পশু পাচারকালে ৬০ বস্তা সার জব্দ করে মামলা পৌনে তিনশ বছরের প্রাচীন শোলাকিয়া ঈদগার প্রস্তুতি ভৈরবে এমবিশন পাবলিক স্কুলের জিপিএ ৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা কুরবানী সম্পর্কীত কিছু মাসায়েল ; সংকলনে : ডা. এ.বি সিদ্দিক ছিনতাইকৃত টাকা ও মাদক উদ্ধারে অবদান রাখায় আইজিপি পুরস্কারে ভূষিত ভৈরবের ওসি সফিকুল ইসলাম ইসরায়েলি গণহত্যার প্রতিবাদে মানববন্ধন

ভৈরবে জমি নিয়ে দ্বন্দ্বে ব্যাংকসহ ২০টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাঙচুর

# মিলাদ হোসেন অপু :-
কিশোরগঞ্জের ভৈরবে জমি নিয়ে দ্বন্দ্বে বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল ব্যাংক, স্বপ্ন সুপার শপসহ ২০টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ ১২ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকেল ৪টার দিকে ভৈরব পৌর শহরের জামে মসজিদ রোড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবত ভৈরবপুর দক্ষিণ পাড়া বেপারী বাড়ির বিজন গ্রুপের সাথে ব্রাদার্স শপিং সেন্টার এর মালিক জাহিদুল হক জাবেদ, তোফাজ্জল হোসেন জাকির, নাসির উদ্দিন খান সায়মন ও তারিক হান্নান এর জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে কিশোরগঞ্জ আদালতে জমি সংক্রান্ত মামলা চলছে।
নূর মোহাম্মদ বেপারীর বাড়ির বিজন মিয়া বলেন, কিশোরগঞ্জ আদালতের রায় অমান্য করে অবৈধভাবে কতিপয় ব্যক্তিরা আমার বাপ-দাদার সম্পত্তি দখল করে ব্রাদার্স শপিং সেন্টার নামে বহুতল ভবনের নির্মাণ কাজ করছে। আজ আমি স্থানীয় কয়েকজনকে নিয়ে তাদের বাধা দিয়েছি। এ সময় আমাদের পক্ষের কিছু মানুষ হট্টগোল করেছে।
ব্রাদার্স শপিং সেন্টারের মালিক তোফাজ্জল হোসেন জাকির বলেন, আমরা ২ বছর আগে সাফকাওলা দলিল মূলে জমিটি ক্রয় করি। ১৯৪২ সাল থেকে ধারাবাহিকভাবে মালিকানা দলিলও আমাদের কাছে রয়েছে। কিন্তু আজ হঠাৎ করে বিজন গ্রুপ কিছু লোকজন নিয়ে এসে জামে মসজিদ রোড এলাকায় বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও আমার ব্রাদার্স শপিং সেন্টারে ভাঙচুর করে। তারা আমাদের প্রতিষ্ঠান ভাঙতে এসে অন্য প্রতিষ্ঠান ভাঙচুর করেছে। তারা স্বপ্ন সুপার শপ নামে একটি প্রতিষ্ঠানে ভাঙচুর ও লুটপাট করে এছাড়াও ন্যাশনাল ব্যাংকের গ্লাস ও প্রায় ২০টি প্রতিষ্ঠানের শার্টার কুপিয়ে ভাঙচুর করেছে।
ভৈরব স্বপ্ন সুপার শপ এর পরিচালক সুজন মিয়া জানান, ব্রাদার্স শপিং সেন্টারের জায়গা নিয়ে দু’পক্ষের দ্বন্দ্বে আমাদের প্রতিষ্ঠান ভাঙচুর ও লুটপাট করেছে। প্রতিষ্ঠান থেকে নগদ অর্থ, দুটি স্মার্টফোন মোবাইল ও বিভিন্ন নামী দামী ব্র্যান্ডের মালামাল লুট করে নিয়েছে।
ভৈরব চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি সভাপতি রোটারিয়ান আলহাজ¦ মো. হুমায়ুন কবির বলেন, জমি নিয়ে দ্বন্দ্ব হলে জমিতে গিয়ে দখল নিবে বা ঝগড়া করবে। কিন্তু ভৈরবের প্রাণকেন্দ্র ভৈরব বাজার জামে মসজিদ রোডে মসজিদ মার্কেটে ২০টি দোকান এবং একটি ব্যাংক ও ভৈরবের একমাত্র সুপার শপ স্বপ্ন ভাংচুর ও লুটপাট করেছে। এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। আমি ভৈরবের রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দসহ সর্বোচ্চ প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করছি। ঘটনার সাথে জড়িতদের আইনের আওতায় এনে সর্বোচ্চ শাস্তির দাবী জানাচ্ছি।
এ বিষয়ে ভৈরব শহর ফাঁড়ি ইনচার্জ মিজানুর রহমান জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনি। জমি সংক্রান্ত দ্বন্দ্বেই একটি পক্ষ ভাঙচুর করেছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *